ঢাকা, ১৫ নভেম্বর, ২০১৯ || ১ অগ্রাহায়ণ ১৪২৬
Breaking:
Mukto Alo24 :: মুক্ত আলোর পথে সত্যের সন্ধানে
সর্বশেষ:
৪৭২

সাক্ষীরা নিরাপত্তাহীনতায়,মুক্তিযোদ্ধাদের কণ্ঠে ক্ষোভ

অনলাইন ডেস্ক

প্রকাশিত: ২৪ জুন ২০১৪   আপডেট: ১৮ জুলাই ২০১৪

 পরপর দুই বার রায় পেছানোর পর ভেবেছিলাম  অপেক্ষার দিন শেষ হবে। কিন্তু হলো তার উল্টো। এতে আসামি পক্ষের লোকজনের সাহস বাড়লো আর আমাদের বাড়লো ভয়।মঙ্গলবার দুপুরে মানবতাবিরোধী অপরাধে অভিযুক্ত জামায়াতের আমির মতিউর রহমান নিজামীর মামলার চূড়ান্ত রায় পেছানোর সংবাদ শোনার পর এভাবেই নিজের ক্ষোভ, হতাশা আর নিরপত্তাহীনতার কথা তুলে ধরেন মামলার সাক্ষী মুক্তিযোদ্ধা জহুরুল হক।তিনি বলেন, এমনিতেই প্রাণনাশের ভয় নিয়ে জীবনযাপন করছি। এখনতো মনে হচ্ছে আদৌ এই মামলার রায় হবে কিনা!শুধু তিনিই নন, অন্যান্য মুক্তিযোদ্ধা ও এলাকাবাসী মেনে নিতে পারছেন না রায় পেছানোর বিষয়টিকে। তবে মুখ খুলতে রাজি নন স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতারা।সাঁথিয়া উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার জহুরুল হক বলেন, এখন জামায়াতের নেতারা উল্লাস করছে। একজন মুক্তিযোদ্ধাকে এটা দেখতে হচ্ছে। এর চেয়ে কষ্টের আর কী আছে! রায় পেছানোর পর থেকে অনেকেই বলাবলি করছে যারা সাক্ষ্য দিয়েছেন তাদের খবর আছে। কিন্তু আমাদের কী দোষ। আমরা তো দেশের স্বার্থে সাক্ষ্য দিয়েছি। তিনি জানান, নিজামীর নির্দেশে তার চোখের সামনে মুক্তিযোদ্ধাদের নির্যাতন করা হয়েছে। গোটা সাঁথিয়া জুড়ে চালানো হয়েছে তাণ্ডব। এগুলোর বিচার না হলে যারা শহীদ হয়েছেন তাদের কী জবাব দেবো?মামলার রায় পেছানোর প্রতিক্রিয়ায় সাঁথিয়া উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ কমান্ডার আবদুল লতিফ বলেন, আমরা স্তম্ভিত ও হতাশ। যদিও এটি আদালতের বিষয়। আমাদের প্রত্যাশা ও দাবি দ্রুত একটা সুষ্ঠু রায় দেওয়া হোক।এলাকার রিকশা চালক মাহবুবুর রহমান মনে করেন, এ বিষয় নিয়ে এতো বেশি সময় নেওয়া উচিত নয়।তিনি বলেন, মামলার রায় নিয়ে এতো ঝুলাঝুলি করার কী আছে! বহুদিন ধরে শুনছি নিজামীর রায় হবে। কিন্তু তা দেখছি না।উপজেলা আওয়ামী লীগের আহ্বায়ক আল মাহমুদ দেলোয়ার হোসেন বাংলানিউজকে বলেন, রায় পেছানো ও স্থগিত করার এখতিয়ার আদালতের। এ বিষয়ে মন্তব্য করা ঠিক হবে না। তবে রাজাকার বাহিনীর সবাইকে নিজামী চাকরি দিয়েছে। দেশের সব বুদ্ধিজীবীকে হত্যা করে মেধাশূন্য দেশ তৈরি করতে নিজামী নেতৃত্ব দিয়েছে। তাই আমরা আশা করবো রায়টি যেন সঠিক হয়।ইতোমধ্যে একটি মামলার রায়ে নিজামীকে ফাঁসির আদেশও দেয়া হয়েছে।

সকালে সাঁথিয়া উপজেলায় ঘুরে দেখা যায় আইনশৃঙ্খলা বাহিনী সদস্যদের সতর্ক অবস্থায় রয়েছে। সব মিলিয়ে এলাকায় একটা গুমোট ভাব ছিল। তবে রায় পেছানোর সংবাদ প্রকাশ হওয়ার পরই সব ঠিক হয়ে যায়। যে যার মতো ব্যস্ত হয়ে পড়েছেন।মানবতাবিরোধী অপরাধে অভিযুক্ত জামায়াতের আমির মতিউর রহমান নিজামীর মামলার রায় মঙ্গলবার ঘোষণা করার কথা থাকলেও অসুস্থতার কারণে তা করা হচ্ছে না বলে জানিয়েছেন আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল-১।বেলা সাড়ে ১১টায় নিজামীর অসুস্থতার কারণে তার মামলার রায় ঘোষণা করা যায় কিনা সে বিষয়ে উভয়পক্ষের শুনানি শেষে রায় অপেক্ষমান (সিএভি) রাখেন চেয়ারম্যান বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম, বিচারপতি আনোয়ারুল হক ও বিচারপতি জাহাঙ্গীর হোসেনের সমন্বয়ে ৩ সদস্যের ট্রাইব্যুনাল।

গত ২৪ মার্চ মামলাটির যুক্তিতর্ক (আর্গুমেন্ট) উপস্থাপনের মাধ্যমে বিচারিক প্রক্রিয়া সম্পন্ন হওয়ায় রায় ঘোষণা অপেক্ষমাণ (সিএভি) রাখেন ট্রাইব্যুনাল।

 

 

আরও পড়ুন
পাবনার খবর বিভাগের সর্বাধিক পঠিত